আইপিএলের টাইটেল স্পন্সর ড্রিম ১১ – BD Sports 24
  • আইপিএলের টাইটেল স্পন্সর ড্রিম ১১

    August 18th, 2020

    স্পোর্টস ডেস্ক

    বিডিস্পোর্টস২৪ ডটকম

    মুম্বাই, ১৮ আগস্ট: চলতি বছর আইপিএলের টাইটেল স্পনসরের নাম ঘোষণা করল বিসিসিআই৷ সংযুক্ত আরব আমিরাতে ১৯ সেপ্টেম্বর থেকে শুরু হতে চলা আইপিএলের ত্রয়োদশ সংস্করণের টাইটেল স্পন্সর হিসেবে দেখা যাবে ড্রিম ১১-কে৷ বিসিসিআই আজ এমনটাই ঘোষণা করেছে।

     

    বিসিসিআই এবং চীনা স্মার্টফোন নির্মাতা ভিভো এই বছরের চুক্তি স্থগিত করার পরে ফ্যান্টাসি ক্রিকেট লিগের প্ল্যাটফর্ম ড্রিম ইলেভেন-কে ইন্ডিয়ান প্রিমিয়র লিগের শিরোনাম স্পন্সর হিসেবে দেখা যাবে৷ টাটা সন্স, আনাকাডেমি এবং বাইজুর মতো ড্রিম ইলেভেন বিশ্বের সবচেয়ে বড় ফ্র্যাঞ্চাইজি ক্রিকেট লিগের টাইটেল স্পন্সরশিপের জন্য বিড করেছিল৷ আইপএল চেয়ারম্যান ব্রিজেশ প্যাটেল জানিয়েছেন, ড্রিম ইলেভেন টাইটেল স্পন্সরশিপ অধিকারের জন্য ২২২ কোটি টাকা বিড করেছিল৷ আনাকাডেমি ২১০ কোটি টাকার বিড করেছিল৷ আর টাটা সন্স ১৮০ কোটি এবং বাইজুর পক্ষে ১২৫ কোটি টাকা বিড করা হয়েছিল৷

     

    ভারত-চীন রাজনৈতিক পরিস্থিতিতে চলতি বছর আইপিএল থেকে সরে দাঁড়িয়েছে বিশ্বের সবচেয়ে বড় ফ্র্যাঞ্চাইজি ক্রিকেট লিগের টাইটেল স্পন্সর থেকে সরে গিয়েছে চিনা মোবাইল সংস্থা ভিভো৷ বিসিসিআইও ভিভো-কে এই বছরের জন্য সাসপেন্ড করেছে৷ প্রতি বছর টাইটেল স্পন্সর হিসেবে ভিভো ৪৪০ কোটি টাকা বোর্ডকে দিত৷ ২০২০ আইপিএলে অর্থাৎ ৪ মাস ১৩ দিনের জন্য বিসিসিআই কমপক্ষে ৩০০ থেকে ৩৫০ কোটি টাকার মধ্যে টাইটেল স্পন্সরেরর টেন্ডার ডেকেছিল৷

     

    ২০২০ আইপিএল টাইটেল স্পন্সরশিপের জন্য আগ্রহ দেখিয়েছিল টাটা গ্রুপও৷ অর্থাৎ শিক্ষা প্রযুক্তি সংস্থা আনাকাডেমি৷ ফ্যান্টাসি স্পোর্টস প্ল্যাটফর্ম ড্রিম ১১-এর পর বিড জমা দিয়েছিল দেশের বৃহত্তম এই শিল্প গোষ্ঠী৷ কিন্তু টাটা সন্স ১৮০ কোটি টাকার বিড জমা দেওয়ায় তাদেরকে টপকে টাইটেল স্পন্সরশিপ স্বত্ব জিতে নেয় ড্রিম ১১৷

     

    গত বছর, ড্রিম ১১ ইন্ডিয়ান প্রিমিয়র লিগের অফিসিয়াল অংশীদার হিসাবে স্বাক্ষর করে৷ কিন্তু এবার আইপিএল শিরোনাম স্পন্সরশিপ এটির দৃশ্যমানতা বৃদ্ধির ক্ষেত্রে এটি আরও ফায়ারপাওয়ার দেবে এবং ফ্যান্টাসি ক্রিকেট লিগের নেতৃত্বকে আরও দৃঢ়তা করবে৷

     

    ড্রিম ১১ চলতি বছর আইপিএলের জন্য বিড জিতলেও তার সামনে সুযোগ রয়েছে ২০২২ পর্যন্ত টাইটেল স্পন্সরশিপ করার৷ চিনা মোবাইল সংস্থা ভিভো যদি ২০২১ সালে স্পনসরশিপ হিসেবে ফিরতে না-চায় সেক্ষেত্রে আরও দু’ বছর অর্থাৎ ২০২২ পর্যন্ত আইপিএলের টাইটেল স্পনসরশিপে স্বত্ব থাকবে ড্রিম ১১-এর হাতে৷

     

    সেক্ষেত্রে পরের দু’ বছরের আরও বেশি অর্থ দিতে হবে এই সংস্থাকে৷ প্রথম বছরের জন্য ড্রিম ১১ বিসিসিআই-কে ২২২ কোটি টাকা দিলেও পরের দু’ বছরের জন্য তাকে দিতে হবে ২৪০ কোটি টাকা করে৷ সূত্র: কলকাতা২৪

     

    বিডিস্পোর্টস২৪ ডটকম/বিকে


অতিথি কলাম

সাক্ষাৎকার

স্পোর্টস ফ্যাশন


প্রবাসী তারকা

    No posts here...

জেলা ক্রীড়া সংস্থা

বিভাগীয় ক্রীড়া সংস্থা

আর্কাইভ ক্যালেন্ডার

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১
১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
১৯২০২১২২২৩২৪২৫
২৬২৭২৮২৯৩০৩১  


ক্রীড়া সাহিত্য

ব্যাডমিন্টন

আরচ্যারি

গল্‌ফ

ভারোত্তোলন

মহিলা ক্রীড়া সংস্থা

    No posts here...