আফগানিস্তানের কাছে হোয়াইটওয়াশ বাংলাদেশ – BD Sports 24
  • আফগানিস্তানের কাছে হোয়াইটওয়াশ বাংলাদেশ

    June 7th, 2018

    ক্রীড়া ডেস্ক
    বিডিস্পোর্টস২৪ ডটকম
    দেরাদুন (ভারত), ৭ জুন: পারলেন না মুশফিকুর রহীম, পারলেন না মাহামুদুল্লাহ রিয়াদ। তারা সম্পর্কে ভায়রা ভাই। এ দু’জনকে বাংলাদেশের ক্রিকেটের ব্যাটিং স্তম্ভ বললেও বাড়িয়ে বলা হবে না। কিন্তু আফগানিস্তানের বিপক্ষে শেষ ম্যাচে অসাধারণ ব্যাটিং করেও বাংলাদেশকে হোয়াইটওয়াশের লজ্জা থেকে রক্ষা করতে পারলেন না মুশফিকুর রহীম ও মাহামুদুল্লাহ রিয়াদ। নাটকীয় ম্যাচে মাত্র ১ রানে হেরে গেছে বাংলাদেশ।
    প্রথম ম্যাচে আফগানিস্তানের কাছে ৪৫ রানের হারের পর দ্বিতীয়টিতে ৬ উইকেটে হেরে সিরিজ আগেই হাতছাড়া করে সাকিব বাহিনী।
    ৫৩ রানে ৪ উইকেট পতনের পর পঞ্চম উইকেট জুটিতে মুশফিকুর রহীম ও মাহামুদুল্লাহ রিয়াদ ৮৪ রানের বড় পার্টনারশিপ গড়েন। শেষ ২ ওভারে জয়ের জন্য বাংলাদেশের প্রয়োজন ছিল ৩০ রান। আফগানিস্তানের হয়ে ১৯তম ওভারটি করতে আসেন করিম জানাত। স্ট্রাইকে তখন মুশফিকুর রহীম। করিম জানাতের প্রথম ৫ বলে ৫টি বাউন্ডারি হারিয়ে ২০ রান যোগ করেন মুশফিকুর রহীম। শেষ বলে ১ রান নেয়ায় শেষ ওভারে জয়ের জন্য বাংলাদেশের প্রয়োজন পড়ে ৯ রান।
    আফগানিস্তানের হয়ে শেষ ওভারটি করতে আসেন স্পিনার রশিদ খান। প্রথম বলেই সফল আফগান বাঁহাতি স্পিনার। প্রথম ডেলিভারিতেই মুশফিকুর রহীমকে বিদায় করে দেন রশিদ খান। ডিপ স্কোয়ার লেগে মুশফিকুর রহীমের ক্যাচটি নেন নজিবুল্লাহ জাদরান। ৩৭ বলে ৭টি চারের সাহায্যে ৪৬ রান করেন মুশফিকুর রহীম।
    মুশফিকুর রহীমের বিদায়ে ক্রিজে আসেন বাংলাদেশের তরুণ ক্রিকেটার আরিফুল হক। এর পরের ৪ বলে বাংলাদেশ ৫ রান যোগ করায় জয়ের জন্য শেষ বলে ৪ রান দরকার পড়ে বাংলাদেশের। স্ট্রাইকে তখন আরিফুল হক। রশিদ খানের শেষ বলটি চমৎকার শটে লং-অন অঞ্চল দিয়ে সীমানার বাইরে যাচ্ছিল। কিন্তু আফগান ক্রিকেটার শফিকউল্লাহ’র অসাধারণ ফিল্ডিংয়ে ২ রানের বেশি নিতে পারেননি আরিফুল হক। ৩ রান নিতে গিয়ে রান আউট হন মাহামুদুল্লাহ। ফলে ১ রানে হেরে যায় বাংলাদেশ। সেইসাথে আফগানিস্তানের কাছে হোয়াইটওয়াশ হয় বাংলাদেশ। মাহামুদুল্লাহ করেন ৩৮ বলে ৪৫ রান।
    এর আগে বাংলাদেশের বিপক্ষে তৃতীয় ও শেষ টি২০তে টস জিতে প্রথমে ব্যাট করতে নেমে আফগানিস্তান ৬ উইকেটে করে ১৪৫ রান।
    বাংলাদেশ আজকে তিনটি পরিবর্তন নিয়ে মাঠে নামে। রুবেল হোসেন, সাব্বির রহমান এবং মোসাদ্দেক হোসেন সৈকতের বদলে আজ খেলছেন আবু জায়েদ, আরিফুল হক এবং মেহেদী হাসান মিরাজ।
    আফগানিস্তানের পক্ষে সর্বোচ্চ ৩৩ রান করে অপরাজিত থাকেন সামিউল্লাহ শেনওয়ারী। তার ২৮ বলের ইনিংসে ১টি চার ও ১টি ছক্কার মার ছিল।
    অধিনায়ক আজগর স্ট্যানিকজাই-এর ব্যাট থেকে আসে ২৭ রান। ওপেনার আহমদ শাহজাদ করেন ২৩ রান। এছাড়া ওসমান গনি ১৯ এবং নজিবুল্লাহ জাদরান করেন ১৫ রান।
    বাংলাদেশের বোলারদের মধ্যে নাজমুল ইসলাম ও আবু জায়েদ দুটি করে এবং সাকিব আল হাসান এবং আরিফুল হক একটি করে উইকেট নেন।
    ম্যাচসেরা হন বাংলাদেশের মিডল অর্ডার ব্যাটসম্যান মুশফিকুর রহীম। সিরিজ সেরার পুরস্কার পান আফগান স্পিনার রশিদ খান।

    বিডিস্পোর্টস২৪ ডটকম/বিকে


অতিথি কলাম

সাক্ষাৎকার

স্পোর্টস ফ্যাশন


প্রবাসী তারকা

জেলা ক্রীড়া সংস্থা

বিভাগীয় ক্রীড়া সংস্থা

আর্কাইভ ক্যালেন্ডার

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০
১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
১৮১৯২০২১২২২৩২৪
২৫২৬২৭২৮২৯৩০  


ক্রীড়া সাহিত্য

ব্যাডমিন্টন

আরচ্যারি

গল্‌ফ

ভারোত্তোলন

মহিলা ক্রীড়া সংস্থা