দ্বিতীয় দিন শেষে প্রথম ইনিংসে ১৫২ রানে পিছিয়ে ভারত – BD Sports 24
  • দ্বিতীয় দিন শেষে প্রথম ইনিংসে ১৫২ রানে পিছিয়ে ভারত

    January 14th, 2018

    ক্রীড়া ডেস্ক:

    বিডিস্পোর্টস২৪ ডটকম

    সেঞ্চুরিয়ন, ১৪ জানুয়ারি: সেঞ্চুরিয়ন টেস্টের দ্বিতীয় দিন শেষে প্রথম ইনিংসে ১৫২ রানে পিছিয়ে রয়েছে সফরকারী ভারত। দক্ষিণ আফ্রিকা প্রথম ইনিংসে ৩৩৫ রানে অলআউট হয়। পাল্টা ব্যাট করতে নেমে ভারত দ্বিতীয় দিন শেষে ৬১ ওভার মোকাবেলায় ৫ উইকেটে ১৮৩ রান স্কোরবোর্ডে জমা করে। ফলে প্রোটিয়াদের করা প্রথম ইনিংসের রান টপকাতে ভারতের এখনো প্রয়োজন ১৫২ রান। হাতে রয়েছে আরো ৫টি উইকেট। অধিনায়ক বিরাট কোহলি ৮৫ এবং হার্ডিক পান্ডিয়া ১১ রানে অপরাজিত রয়েছেন।

    সেঞ্চুরিয়ন টেস্টের প্রথম দিনশেষে স্বাগতিকদের স্কোর ছিল ৯০ ওভারে ২৬৯/৬। ফাফ ডু প্লেসিস ২৪ ও মহারাজ ১০ রানে অপরাজিত ছিলেন।

    এ অবস্থায় আজ রোববার দ্বিতীয় দিনের খেলা শুরু করে দক্ষিণ আফ্রিকা। আগের দিনের স্কোরের সাথে ১৩ রান যোগ করতেই বিদায় নেন মহারাজ। ১৮ রান করা মহারাজ মোহাম্মদ সামির বলে উইকেটের পেছনে পার্থিব প্যাটেলের হাতে ধরা পড়েন।

    অষ্টম উইকেট জুটিতে অধিনায়ক ডু প্লেসিস পেসার রাবাদাকে সাথে নিয়ে ৪২ রানের পার্টনারশিপ গড়েন। ইশান্ত শর্মার বলে হার্ডিক পান্ডিয়ার তালুবন্দী হওয়ার আগে রাবাদা নিজের নামের পাশে যোগ করেন ১১ রান। ৩৩৩ রানে আবারো আঘাত হানেন ইশান্ত শর্মা। ৬৩ রান করা অধিনায়ক ফাফ ডু প্লেসিসকে সরাসরি বোল্ড করে দেন ইশান্ত শর্মা। আর মাত্র ২ রান যোগ করতেই অশ্বিনের বলে মরকেল বিদায় নিলে ৩৩৫ রানে প্রথম ইনিংসে অলআউট হন প্রোটিয়ারা। ওভার মোকাবেলা করে ১১৩.৫। অর্থাৎ দ্বিতীয় দিনে ২৩.৫ ওভার মোকাবেলা করতেই ৪ উইকেট হারিয়ে অলআউট হয় স্বাগতিকরা।

    ভারতের বোলারদের মধ্যে অশ্বিন ৪টি, ইশান্ত শর্মা ৩টি এবং মোহাম্মদ সামি একটি উইকেট নেন।

    দ্বিতীয় দিনে ব্যাট করতে নেমে শুরুটা ভালোই করেছিলেন ভারতের দুই ওপেনার মুরালি বিজয় ও লোকেশ রাহুল। কিন্তু ব্যক্তিগত ১০ রানে প্রোটিয়া পেসার মরনে মরকেলের বলে তার হাতেই ক্যাচ দিয়ে সাজঘরে ফিরেন লোকেশ রাহুল। দলীয় রান তখন ২৮। এ অবস্থায় ক্রিজে আসেন চেতেশ্বর পূজারা। কিন্তু দুর্ভাগ্যজনক রান আউট হয়ে ০ রানে বিদায় নেন পূজারা। ফলে দ্বিতীয় উইকেট হারায় ভারত।

    পূজারার বিদায়ে মুরালি বিজয়ের সাথে জুটি বাধেন অধিনায়ক বিরাট কোহলি। এই দুই ব্যাটসম্যান তৃতীয় উইকেট জুটিতে ৭৯ রানের পার্টনারশিপ গড়েন। মুরালি বিজয় আউট হন ৪৬ রানে। মাত্র ৪ রানের জন্য অর্ধশত রান থেকে বঞ্চিত হন বিজয়।

    এরপর রোহিত শর্মা ব্যক্তিগত ১০ এবং পার্থিব প্যাটেল ১৯ রান করে প্যাভিলিয়নে ফেরত যান। দলীয় রান তখন ১৬৪। অপর প্রান্ত আগলে রাখেন অধিনায়ক কোহলি।

    দ্বিতীয় দিনের শেষদিকে বিরাট কোহলি হার্ডিক পান্ডিয়াকে নিয়ে দ্বিতীয় দিনটি পার করে দিলে ৬১ ওভারে ভারতের স্কোর দাঁড়ায় ১৮৩/৫। অধিনায়ক কোহলি এদিন ১৬তম টেস্ট ফিফটির দেখা পান। কোহলি ৮৫ ও পান্ডিয়া ১১ রানে অপরাজিত রয়েছেন।

    চার প্রোটিয়া বোলার মহারাজ, মরকেল, রাবাদা ও এনগিদি একটি করে উইকেট নেন।

     

     

    বিডিস্পোর্টস২৪ ডটকম/বিকে


অতিথি কলাম

সাক্ষাৎকার

স্পোর্টস ফ্যাশন


প্রবাসী তারকা

জেলা ক্রীড়া সংস্থা

বিভাগীয় ক্রীড়া সংস্থা

আর্কাইভ ক্যালেন্ডার

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০
১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
১৮১৯২০২১২২২৩২৪
২৫২৬২৭২৮২৯৩০  


ক্রীড়া সাহিত্য

ব্যাডমিন্টন

আরচ্যারি

গল্‌ফ

ভারোত্তোলন

মহিলা ক্রীড়া সংস্থা